সোমবার, ১৫ অগাস্ট ২০২২, ১০:৫৯ অপরাহ্ন

হঠাৎ করেই বেসরকারি হাসপাতালের রান্নাঘরে আগুন। আর তাই প্রাণ বাঁচাতে কোনো কিছুই না ভেবে তিনতলা থেকে ঝাঁপ দিয়েছেন রাঁধুনী। ঘটনাটিকে কেন্দ্র করে ইতিমধ্যে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে। আজ শুক্রবার (২২ জুলাই) বাঁকুড়া জেলার স্ট্যাচু মোড় এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। যদিও ভাগ্যের জোরে বেঁচে গেছেন ওই মহিলা। তাকে নিচ থেকে বহুবার নিষেধ করা সত্ত্বেও তিনি ঝাঁপ দেন।

তবে গুরুতর ভাবে কোনো আঘাত পাননি তিনি। সঠিক সময়ে সেখানে উপস্থিত জনতা তাকে ধরে ফেলায় তিনি বর্তমানে সুস্থই আছেন। ঘটনায় স্বাভাবিকভাবেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন রোগী ও পরিবারের সদস্যরা। তবে সবাই নিরাপদে আছে বলে জানা গেছে। পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, কীভাবে এই আগুন লেগেছে তা এখনও স্পষ্ট নয়। তবে প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে, সিলিন্ডার থেকেই এই আগুন লেগেছে।

ভারতীয় একাধিক গনমাধ্যম জানিয়েছে, বিষ্ণুপুর শহরের রবীন্দ্র স্ট্যাচু মোড় সংলগ্ন ওই বেসরকারি হাসপাতালটি। রান্নাঘর রয়েছে বেসরকারি হাসপাতালটির ৩ তলায়। শুক্রবার সকালে রান্নাঘরে রান্না করছিলেন ওই হাসপাতালের রাঁধুনি। তিনি রান্না করার সময়ই আচমকা গ্যাস সিলিন্ডার থেকে রান্নাঘরে আগুন লেগে যায়। আগুন লাগতেই আতঙ্কে রান্নাঘর থেকে বেরিয়ে আসেন ওই মহিলা। তারপরই প্রাণভয়ে ৩ তলার বারান্দা থেকে ঝাঁপ দেন ওই রাঁধুনি। ক্যামেরাবন্দি হয়েছে সেই দৃশ্য। যদিও তাঁর বড়সড় কোনও ক্ষতি হয়নি। তিনি ঝাঁপ দিতেই, নীচে তাঁকে ধরে ফেলেন অন্যরা।

এই ঘটনায় শারীরিক ভাবে কেউ আহত হন নি। অন্যদিকে, আগুন লাগতেই আতঙ্কে বেড ছেড়ে ঘর থেকে বেরিয়ে আসেন রোগী ও রোগীর পরিবারের লোকেরাও। আগুন লাগার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে দমকল। শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, দমকলের একটি ইঞ্জিন যুদ্ধকালীন তৎপরতায় আগুন নেভানোর কাজ করছে। এই ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়।

আরও পড়ুন