মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ১০:১৮ পূর্বাহ্ন

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সে এক যাত্রী একাধিকবার পানি চেয়েছিলেন। এজন্য ক্ষেপে গিয়ে চিৎকার করে বিমানের ক্রু বলেছিলেন ‘আমরা চাকর না, মেশিন না’। সেই কেবিন ক্রুকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। ওই কেবিন ক্রুর নাম মো. মুগনী মোস্তফা। তিনি ফ্লাইট স্টুয়ার্ট হিসেবে কাজ করছিলেন।

বুধবার (২৭ জুলাই) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার। তিনি বলেন, ‘যাত্রীদের সঙ্গে অসদাচরণের জন্য ফ্লাইট স্টুয়ার্ট মো. মুগনী মোস্তফাকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।’ এ ঘটনায় আরও ৩ কেবিন ক্রুকে গ্রাউন্ডেড করে রাখা হয়েছে বলে জানান তিনি। তদন্ত প্রতিবেদন আসার আগ পর্যন্ত গ্রাউন্ডেড কেবিন ক্রুরা বিমানের ডেস্কে অফিস করবেন।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স জানায়, গত বৃহস্পতিবার কলকাতা থেকে ঢাকায় আসা বিমানের বিজি-৩৯৬ ফ্লাইটে যাত্রীদের সঙ্গে কেবিন ক্রুদের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে। পরে যাত্রীরা বিমানের কাছে ফ্লাইট স্টুয়ার্টদের বিরুদ্ধে ‘অসদাচরণের’ অভিযোগ আনেন।

অভিযোগপত্রে এক যাত্রী উল্লেখ করেছেন, বৃহস্পতিবার বিজি-৩৯৬ ফ্লাইটটি নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বোস আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে রাত ৯টার পর ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে আসে। বিমানের ভেতর এসি কাজ না করায় কয়েকজন যাত্রী অসুস্থ বোধ করেন। তখন তারা ক্রুদের কাছে পানি চান। বার বার পানি চাওয়ায় এক ক্রু যাত্রীদের ‘সার্ভেন্ট নন’ ও ‘মেশিন নন’ বলে জানান। এ নিয়ে ক্রুরা কয়েক দফা ঝগড়াও করেন যাত্রীদের সঙ্গে।

ঢাকায় নামার পর বিমানবন্দরে বিমান কর্তৃপক্ষ বিষয়টি সুরাহা করার চেষ্টা করে। তবে সেখানেও ক্রুরা যাত্রীদের সঙ্গে খারাপ আচরণ করেন। তাই তাদের গ্রাউন্ডেড করা হয়। এ ঘটনা তদন্তে একটি তদন্ত কমিটিও গঠন করেছে বিমান কর্তৃপক্ষ।

আরও পড়ুন