শুক্রবার, ১৯ অগাস্ট ২০২২, ০৪:৩৯ পূর্বাহ্ন

মাসখানেক আগেই নতুন করে সংসার বেঁধেছেন চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা। তার স্বামী আশফাকুর রহমান রবিন একটি বহুজাতিক কোম্পানিতে মার্কেটিং বিভাগের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা। বিয়ের পর থেকেই এই দম্পতিকে নিয়ে বেশ আলোচনা চলছে সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে।

বিশেষ করে স্বামীর বয়স নিয়ে। নেটিজেনদের দাবি, পূর্ণিমার চেয়ে তার স্বামীর বয়স কম। সম্প্রতি এ বিষয় নিয়ে মুখ খুলেছেন পূর্ণিমা। তিনি জানান, বিয়ের আগে থেকেই এমনটা ধারণা করেছিলেন। এজন্য প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছেন সমালোচনা সহ্য করার। গণমাধ্যমকে পূর্ণিমা বলেন, ‘এটার জন্য আগে থেকে প্রস্তুত ছিলাম আমি।

জানতাম, বিয়ের পর স্বামীর বয়স নিয়ে কথা উঠবে। যারা এসব লেখেন, না লিখতে পারলে তারা ভালো থাকবেন না। না লিখতে পারলে তাদের মন খিটখিট করবে। আমাকে দুই–তিনটা গালি দিতে না পারলে উল্টা পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে ঝগড়াঝাটি করবেন তারা। আমাকে নিয়ে এভাবে গা’লাগা’লি করে যদি তাদের শান্তি লাগে, আমি খুশি।’

নিন্দুকদের শান্তি-সুখ কামনা করে পূর্ণিমা আরও বলেছেন, ‘আমার ছবি পোস্ট করে দু-চারটা গালি দিক, তাতে আমার কোনো সমস্যা নেই। তবু তারা শান্তিতে থাক, সুখে থাক, সুস্থ থাক। তাদের জন্য আমাদের দুজনের পক্ষ থেকে শুভকামনা।’

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালে কাজের সূত্রে আশফাকুর রহমান রবিনের সঙ্গে পরিচয় হয় পূর্ণিমার। এরপর আলাপে আলাপে তাদের বন্ধুত্ব ও প্রেম হয়। সেটাকেই বিয়েতে পূর্ণতা দিয়েছেন নায়িকা। এর আগে আহমেদ ফাহাদ জামাল নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে দীর্ঘ প্রায় এক যুগ সংসার করেছেন পূর্ণিমা। তাদের একটি কন্যাসন্তানও রয়েছে। বছর তিনেক আগে ফাহাদের সঙ্গে পূর্ণিমার বিচ্ছেদ হয়েছে।

আরও পড়ুন