বৃহস্পতিবার, ১৮ অগাস্ট ২০২২, ০১:৪১ অপরাহ্ন

রাজধানীর ব্যস্ততম এলাকা কারওয়ান বাজার থেকে গত ২১ জুলাই জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) মাস্টার্সের ছাত্রী পারিশা আক্তারের (২৫) মোবাইল ফোন ছি’নতাইয়ের ঘটনায় জড়িত দুইজনকে গ্রে’ফতার করেছে পুলিশ। গ্রে’ফতারকৃতরা হলেন- রাশেদুল ইসলাম (১৭) ও রিপন ওরফে আকাশ (২৪)।

গ্রেফ’তারকৃতরা জানান, মোবাইলটি ৪ হাজার টাকায় বিক্রি করেছিলেন তারা। ওই টাকার মধ্যে তারা উভয়ে ১ হাজার টাকা করে নিয়ে বাকি দুই হাজার টাকায় ম’দ কিনে খেয়েছিলেন। বুধবার (৩ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে রাজধানীর তেজগাঁও থানা কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান তেজগাঁও বিভাগের অ’তিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) রুবাইয়াত জামান।

গত ২১ জুলাই (বৃহস্পতিবার) বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে পারিশা মিরপুর থেকে থিসিসের বিশ্ববিদ্যালয়ে ফেরার সময় রাজধানীর কারওয়ান বাজার ট্রাফিক সিগন্যালে বাসে বসে ছিলেন। তখন ছি’নতাইকারী জানালার ভিতর হাত দিয়ে ফোনটি ছিনিয়ে নেয়। এরপর বাস থেকে নেমে পারিশা ২ জন ছিন’তাইকারীকে ধরে পুলিশের হাতে তুলে দেন। তবে নিজের ফোন ছি’নতাইকারীকে ধরতে পারেননি তিনি।

ওই সময়ে ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী পারিশা বলেন, মোবাইল ফোনে তার থিসিসের সব ডকুমেন্টস এবং প্রয়োজনীয় তথ্য ছিল। তার থিসিস জমা দেওয়ার সময় ঘনিয়ে আসছে। তাই ফোনের জন্য এত চিন্তা। তিনি দ্রুত ছিন’তাইকারীকে গ্রে’প্তার ও ফোন উদ্ধারের দাবি জানিয়েছিলেন।

আরও পড়ুন