সোমবার, ০৪ Jul ২০২২, ১২:৫৭ অপরাহ্ন

সৌদি আরবে গত এক সপ্তাহে বাংলাদেশিসহ বিভিন্ন দেশের ১৪,৬০০ জন অবৈধ প্রবাসী গ্রে’ফতার হয়েছে।

গত ১৫ জুলাই থেকে ২১ জুলাই পর্যন্ত সময়ে রেসিডেন্সি (আকামা) আইন অমা’ন্য করায় এবং অবৈ’ধভাবে সীমান্ত পার হয়ে সৌদি আরবে প্রবেশ করায় এসব প্রবাসীদের গ্রে’ফতার করা হয়।

সৌদি প্রতিরক্ষা বাহিনী ও ডিরেক্টরেট জেনারেল অফ পাসপোর্ট (জাওয়াজাত) এর যৌথ প্রচেষ্ঠায় এসব অবৈধ প্রবাসীদেরকে গ্রে’ফতার অভিযান পরিচালনা করা হয়।

গ্রে’ফতারকৃতদের মধ্যে ৪,৫০০ জন রেসিডেন্সি আইন অমা’ন্য করেছেন, ৯,০০০ জন সীমান্ত সুরক্ষা অমান্য করে অবৈ’ধ পথে সৌদি আরবে প্রবেশ করেছেন, এবং ১ হাজার জন শ্রম আ’ইন ভ’ঙ্গ করেছেন।

সৌদি আরবে অবৈ’ধ পথে প্রবেশ করার সময়ে গ্রে’ফতার করা হয়েছে ২৭০ জনকে, যার মধ্যে ৪৬ শতাংশ ইয়েমেনি নাগরিক, ৪৪ শতাংশ ইথিওপিয়ান নাগরিক, এবং বাকি ১০ শতাংশ বাংলাদেশ, ইন্ডিয়া, পাকিস্তানসহ বিভিন্ন দেশের নাগরিক রয়েছে।

সৌদি আরব থেকে অবৈ’ধ উপায়ে সীমান্ত পার হয়ে সৌদি আরব ত্যাগ করার সময়ে ১২৭ জন অবৈধ প্রবাসী গ্রে’ফতার করা হয়েছে। এছাড়াও আইন অমা’ন্যকারীদের পরিবহণ ও আশ্রয় দেয়ার অপরাধে ৫ জনকে গ্রেফ’তার করা হয়।

সৌদি আরবের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সত’র্ক করেছে, যে যদি কেউ অন্যদের অবৈধ পথে সৌদি আরবে প্রবেশে সহায়তা করে অথবা অবৈ’ধভাবে অনুপ্রবেশকারীদের আশ্রয় প্রদান করেন বা যেকোনভাবে সহায়তা করেন, তবে তাকে সর্বোচ্চ ১৫ বছরের কারাদন্ড ওবং সর্বোচ্চ ১০ লাখ রিয়াল এর জরিমানা করা হবে।

পরিবহণে ব্যবহৃত যানবাহন, এবং আশ্রয় প্রদানে ব্যবহৃত ঘরবাড়ি জব্দ করা হবে। পাশাপাশি স্থানীয় গণমাধ্যম এবং সংবাদপত্রের মাধ্যমে তাদের নামসহ অপ’রাধের বিবরণ তুলে ধরা হবে।

আরও পড়ুন