বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ০১:৫২ পূর্বাহ্ন

তালেবান দ্বিতীয় দফায় আফগানিস্তানের শাসন ক্ষমতা দখলের পর দেশ ছাড়াতে মরিয়া হয়ে উঠছে সাধারণ নাগরিকরা। যেকোনো উপায়ে দেশ ছাড়াতে মরিয়া আফগান জনগণের কাঁটাতারের উপর দিয়ে শিশুদের ছুঁড়ে দেওয়ার মতো হৃ’দয়বিদারক ঘটনা ঘটেছে।

উড়ন্ত বিমান থেকে পড়ে দুই যুবকের মৃ’ত্যুর ম’র্মান্তিত ঘটনা পাশাপাশি ঘটেছে বিমানবন্দরে পদদলিত হয়ে মৃ’ত্যুর ঘটনাও। এরই মধ্যে কাবুল থেকে ব্রিটেনগামী এক বিমানে আস্ত একটি গাড়ি নিয়ে যাওয়ার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। সেই বিমানে দেখে গেছে অনেক ফাঁকা জায়গাও।

নতুন খবর হচ্ছে, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের দল পিটিআই (পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ)-এর নেত্রী নীলম ইরশাদ শেখ মন্তব্য করেছেন, আফগানিস্তান দখলের জন্য তালিবানকে সাহায্য করেছে ইসলামাবাদ। এর বিনিময়ে কাশ্মীর দখল করে পাকিস্তানের হাতে তুলে দেবে তালিবান।

সম্প্রতি পিটিআই-এর ওই নেত্রীর এমন মন্তব্য ঘিরে বিতর্কের শুরু হয়েছে পাকিস্তানের রাজনীতিতে।

মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট) পাকিস্তানের একটি টিভি চ্যানেলের বিতর্কে নীলম বলেন, তালেবান বলেছে, তারা আমাদের পাশে রয়েছে এবং কাশ্মীরের মুক্তির জন্য আমাদের সাহায্য করবে। পাক গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই প্রত্যক্ষভাবে আফগান তালেবানকে সাহায্য করেছে বলেও দাবি করেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, তালেবান জানিয়েছে, তাদের এবং কাশ্মীরের মানুষের সঙ্গে খারাপ আচরণ করেছে ভারত। এ কারণে ভারতের হাত থেকে কাশ্মীরকে মুক্ত করার জন্য পাকিস্তানের পাশে থাকবে তারা।

আরও পড়ুন