সোমবার, ০৪ Jul ২০২২, ০৮:৩৫ অপরাহ্ন

রাজধানীর হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে করোন পরীক্ষা করতে বেশ সময় প্রয়োজন হচ্ছে। আরব আমিরাতের যাত্রীদেরকে বিমানবন্দরে এসে পোহাতে হচ্ছে ভোগান্তি। অন্তত ১০ বার বিভিন্ন লাইনে দাঁড়িয়ে তাদেরকে করতে হচ্ছে করোনা পরীক্ষা। এতে সময় ক্ষেপণ হওয়ায় তার অনেকেই ব্যর্থ হচ্ছেন ফ্লাইট ধরতে।

বিমানবন্দর সূত্র জানায়, সোমবার (০৪ অক্টোবর) দিনগত রাতে ইতিহাদ এয়ার ওয়েজের আরব আমিরাতগামী একটি ফ্লাইটে বাংলাদেশ থেকে অসংখ্য মানুষের যাওয়ার কথা ছিল। এজন্য তারা বিমানবন্দরে এসে করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দেয়। কিন্তু ফল আসতে দেরি হওয়ায় ৮০ জন যাত্রী ফ্লাইট ধরতে পারেনি। বিলম্ব হওয়ায় তাদের রেখেই কাউন্টার বন্ধ হয়ে যায়।

এসব তথ্য জানিয়ে বিমানবন্দরের নির্বাহী পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন তৌহিদ উল আহসান জানান, বিমানবন্দরে করোনা পরীক্ষা করে ফল পেতে বিলম্ব হওয়ায় অনেকে ফ্লাইট ধরতে পারছেন না। সময়মতো করোনা পরীক্ষার ফল দিতে হবে। এ রকম দেরি হলে হবে না।

স্বাস্থ্য বিভাগের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, তাদেরকে আরও দ্রুত করোনা পরীক্ষার ফল দিতে হবে। আরব আমিরাতের যাত্রীদের জন্য যাতে আরও অল্প সময়ে করোনা পরীক্ষার ফল দেওয়া যায়, সেটা দেখতে হবে।

জানা যায়, ফ্লাইট ধরতে ব্যর্থ হওয়া ওই যাত্রীদেরকে আমিরাতে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। ইতিহাদ এয়ারওয়েজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে। ওই ৮০ জন যাত্রীকে ইতিহাদের পরবর্তী ফ্লাইটে নেওয়া হবে।

তৌহিদ উল আহসান আরও জানান, যাত্রীদের সঠিক সময়ে বিমানবন্দরে আসতে হবে। নির্ধারিত ফ্লাইট সূচির অন্তত ছয় থেকে আট ঘণ্টা আগে বিমানবন্দরে এলে এ ধরনের সমস্যা হবে না।

এদিকে পরিচয় গোপন রাখার শর্তে আমিরাতগামী একটি এয়ারলাইন্সের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, করোনা পরীক্ষা নিয়ে কোনো সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনা নেই। যাত্রীদের ফ্লাইটের সময় বিবেচনা করে রিপোর্ট দেওয়া হচ্ছে না।

রিপোর্ট দেওয়ার পর আবার সেটাও অনলাইনে যাচাইয়ের জন্য যাত্রীদের লাইনে দাঁড় করানো হচ্ছে। এর মধ্য দিয়ে অহেতুক সময় নষ্ট করা হচ্ছে।

আরও পড়ুন