বৃহস্পতিবার, ০৭ Jul ২০২২, ০১:২৭ অপরাহ্ন

বাংলাদেশে নতুন করে শনাক্ত এইডস রোগীদের প্রতি চারজনের একজনই রোহিঙ্গা নাগরিক। ২০২০ সালের নভেম্বর থেকে ২০২১ সালের অক্টোবর পর্যন্ত দেশে নতুন করেন এইডস শনাক্ত হয়েছেন ৭২৯ জন। যার ফলে এখন পর্যন্ত এই রোগে আক্রান্ত ব্যক্তির সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ৭৬১ জন। তাদের মধ্যে চিকিৎসাধীন আছেন ৭৭ শতাংশ।

বুধবার (১ ডিসেম্বর) রাজধানীর মহাখালীতে বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিশিয়ান্স অ্যান্ড সার্জন্সে (বিসিপিএস) এইড দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এই তথ্য জানায়।

তাদের পক্ষ থেকে পাওয়া তথ্য মতে, গত এক বছরে নতুন আক্রান্তদের মধ্যে বাস্তুচ্যুত মিয়ানমারের রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী আছেন ১৮৮ জন। বর্তমানে দেশে এইডস রোগী শনাক্তের হার শূন্য দশমিক শূন্য ১ শতাংশের কম। তবে ঝুঁকিপূর্ণ জনগোষ্ঠীর মধ্যে সংক্রমণ কিছুটা বেশি।

অন্যদিকে একই সময়ে এইডসে ভুগে মৃত্যু হয়েছে ২০৫ জনের। এই নিয়ে দেশে সংক্রামক ভাইরাসটিতে প্রাণহানির সংখ্যা ১ হাজার ৫৮৮ জনে দাঁড়াল।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য বলছে, দেশে গত ১ বছরে মোট এইচআইভি পরীক্ষা হয়েছে ৬ লাখ ২৮ হাজার ৩১২ জনের। এ ছাড়া ব্লাড স্ক্রিনিং হয়েছে আরও ৬ লাখ ৬২ হাজার ৭৫৭ জনের।

এই সময়ে নতুন আক্রান্তদের মধ্যে সাধারণ জনগোষ্ঠী ১৮৬ জন, রোহিঙ্গা ১৮৮ জন, বিদেশ ফেরত প্রবাসী ও তাদের পরিবারের সদস্য ১৪৪ জন, ইনজেকশনের মাধ্যমে শিরায় মাদক গ্রহণকারী ৬১ জন, নারী যৌনকর্মী ১৭ জন, সমকামী ৬৭ জন, পুরুষ যৌনকর্মী ৫৩ জন ও উভয় লিঙ্গের ১৩ জন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জাহিদ মালেক। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সিনিয়র সচিব লোকমান হোসেন মিয়া , স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব আলী নূর ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলমসহ অনেকে।

আরও পড়ুন