শনিবার, ০২ Jul ২০২২, ০৫:১৯ পূর্বাহ্ন

ফেনীর সোনাগাজীতে এক মসজিদের ইমামের দুটি মোবাইল চুরির অভিযোগে ফাতেমা আক্তার পাখি (৩৫) নামে এক নারীকে শুক্রবার (১২ নভেম্বর) দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ। সে উপজেলার মঙ্গলকান্দি ইউনিয়নের লক্ষ্মীপুর গ্রামের রফিক উদ্দিন সবুজের স্ত্রী। গত বৃহস্পতিবার রাত নয়টার দিকে তাকে ওই গ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানিয়েছে, লক্ষ্মীপুর গ্রামের বায়তুন নুর মসজিদের ইমাম মাও.সাইফুল ইসলাম বৃহস্পতিবার রাত সাতটার দিকে মসজিদে এশার নামাজের আযান দিচ্ছিলেন। এমন সময় মসজিদের পাশে ইমামের কক্ষে প্রবেশ করে তার ব্যবহৃত দুটি মোবাইল ফোন চুরি করে ফাতেমা নিয়ে যায়। আযান শেষ করে ওই নারীকে অনুসরণ করে দৌঁড়াতে থাকেন ইমাম।

এমন সময় তার আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে ওই নারী বলেন তিনি মোবাইল চুরি করেননি। তার বাসা থেকে ইমামের রাতের খাবার দেওয়ার জন্য তিনি পাত্র আনতে ইমামের কক্ষে ঢুকেছেন। তিনি মোবাইল চুরি করেননি। এক পর্যায়ে উল্টো ইমাম খারাপ উদ্দেশ্যে তাকে দরজা খোলা রাখতে বলেছেন মর্মে অপবাদ দেন। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়দের মাঝে উত্তেজনা দেখা দেয়।

পরে স্থানীয়রা ওই নারীর বসতঘরের থেকে ইমামের দুটি মোবাইল উদ্ধার করে। তখন ওই নারী মোবাইল চুরির কথা স্বীকার করে সবার কাছে ক্ষমা চান। কিন্তু এর মাঝে স্থানীয়দের উত্তেজনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।

এ ঘটনায় ইমাম মাও. সাইফুল ইসলাম বাদী হয়ে ওই নারীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব এসডিএম দিদার ও সোনাগাজী মডেল থানার ওসি মোহাম্মদ সাজেদুল ইসলাম আরটিভি নিউজকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন