শনিবার, ০২ Jul ২০২২, ১১:৩৫ অপরাহ্ন

হবিগঞ্জ সদর উপজেলার দীগলবাগ গ্রামে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে প্রেমিকাকে ধ’র্ষ’ণ করার অভিযোগে প্রেমিক খাইরুল ইসলামকে (২২) গ্রে’প্তার করেছে পু’লিশ। বিষয়টি ধামাচাপা দিয়ে ছোট ভাইকে রক্ষা করার অভিযোগে তার বড় ভাই সামছুল ইসলামকেও গ্রে’প্তার করা হয়।

রবিবার (১ আগস্ট) বিকেলে তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। গ্রে’প্তারকৃত আসামিরা হবিগঞ্জ সদর উপজেলার আনন্দপুর গ্রামের মৃ’ত মান্নান মিয়ার ছেলে।

পু’লিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীগলবাগ গ্রামের এক মেয়ের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে তার আত্মীয় রাজমিস্ত্রী খাইরুল ইসলাম। বিয়ের প্র’লোভন দিয়ে তিনি প্রমিকাকে একাধিকবার ধ’র্ষণ করেন বলে অভিযোগ। শুক্রবার রাতে ওই তরুনীর বাড়িতে আপত্তিকর অবস্থায় আট’ক হন খাইরুল। বিষয়টি তার বড় ভাই সামছুল ইসলামকে জানালে তিনি তাদেরকে বিভিন্ন হু’মকি দেন এবং ঘটনা ধামাচাডা দেওয়ার চেষ্টা করেন।

পরে ভিকটিমের মামা হবিগঞ্জ সদর থানায় মামলা দায়ের করলে রবিবার (১ আগস্ট) দুইভাইকে পু’লিশকে গ্রে’প্তার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করে। হবিগঞ্জ সদর থা’নার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুক আলী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন