রবিবার, ০৩ Jul ২০২২, ১২:৪৮ অপরাহ্ন

শিল্পী সমিতির সদ্য সমাপ্ত নির্বাচনে জায়েদ খানের কাছে ১৩ ভোটে হেরেছেন সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী চিত্রনায়িকা নিপুণ। প্রকাশিত ফলাফলে অসন্তোষ প্রকাশ করে নির্বাচন কমিশন বরাবর আপিল করেছিলেন তিনি। তবে আপিল করেও ব্যর্থ। এবার সাধারণ সম্পাদক পদে পুনরায় নির্বাচন চান নিপুণ।

আজ (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান চিত্রনায়িকা নিপুণ।

উক্ত সংবাদ সম্মেলনে জায়েদ খানের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগও আনেন তিনি। জায়েদ খানের বিরুদ্ধে ভোট কেনাসহ বাইরে থেকে প্রভাব খাটানোর অভিযোগ করেন এই নায়িকা। এ ছাড়াও প্রধান নির্বাচন কমিশনার পীরজাদা হারুনের পক্ষপাতমূলক আচরণের অভিযোগ করেন তিনি। এমনকি তার সঙ্গে নির্বাচন কমিশনারের আপত্তিকর প্রস্তাবের বিষয়টি সামনে আনেন।

এ ছাড়াও নিপুণ প্রজেক্টরে, মেসেঞ্জারের কিছু কথপোকথের স্ক্রিনশট সবার উদ্দেশ্যে দেখিয়েছেন। সেই স্ক্রিনশটে দেখা মেলে জায়েদ খানের সঙ্গে এক ব্যক্তির কথপোকথন।

পাঠকের জন্য তা প্রকাশ করা হলো।

জায়েদ খান : ভাইয়া পেমেন্ট ক্লিয়ার, নো টেনশন।

অপর ব্যক্তি : বেশ। তাদের সবাইকে বিএফডিসির গেট থেকে একটু দূরে অবস্থান করতে বলে দিয়েছি আমি। তুমি বুকে সাহস রেখে কাজ চালিয়ে যাও।

জায়েদ খান : ভাইয়া হারুন ভাই বলল রিয়াজকে সরাতে হবে।

অপর ব্যক্তি : শোনো জায়েদ, সব তোমার ইচ্ছেমতো হলে চলবে না। প্রশাসনিক ঝামেলা আমাকে পোহাতে হয়। রিয়াজকে টেকনিক্যালি এখন কিছু করতে গেলে তোমার ওপর চাপ সৃষ্টি হবে। রিয়াজ বরং ভেতরেই থাকুক। বিকল্প উপায় বের করো।

জায়েদ খান : ভাইয়া আমি সব সেটিং করে রেখেছি। আপনি পারমিশন দিলে গেম প্লে স্টার্ট করব।

প্রসঙ্গত, গত শুক্রবার (২৮ জানুয়ারি) উৎসবমুখর পরিবেশে শেষ হয় বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির ১৭তম নির্বাচন। বিএফডিসিতে সকাল ৯টা ১৬ মিনিটে শুরু হয়ে ভোটগ্রহণ শেষ হয় বিকেল ৫টা ১৬ মিনিটে। এবারের নির্বাচনে ৪২৮ জন ভোটারের মধ্যে ৩৬৫ জন ভোটার উপস্থিত হয়েছেন। ২১টি পদে তাদের প্রতিনিধি বাছাই করেন।

এবারের নির্বাচনে সাধারণ সম্পাদক পদে ১৭৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন জায়েদ খান এবং তার বিপরীতে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী নিপুণ পেয়েছেন ১৬৩ ভোট।

আরও পড়ুন