সোমবার, ০৪ Jul ২০২২, ০৭:৪৬ অপরাহ্ন

এবার সপ্তম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলায় হায়দার আলী নামে এক মেম্বার প্রার্থী গরুর গায়ে পোস্টার ঝুলিয়ে গ্রামের বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট চাইছেন। এ সময় বলছেন, ভোটে জিতলেই গরুসহ একটি ছাগল জবাই করে এলাকাবাসীকে খাওয়ানো হবে। আজ শনিবার ৫ জানুয়ারি দুপুরে এমন চিত্র দেখা যায়। অন্যদিকে এ ধরনের প্রচারণা নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘন বলে অভিযোগ করেছেন আরেক মেম্বার প্রার্থী।

জানা যায়, সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার মাধাইনগর ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডে মেম্বর পদে পাঁচজন প্রার্থী নির্বাচন করছেন। এদের মধ্যে হায়দার আলী ফ্যান মার্কা নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। গতবারের মতো এবার জয় পেতে একটি ষাঁড় গরুর শরীরে পোস্টার ঝুলিয়ে ব্যতিক্রমী প্রচারণা চালাচ্ছেন তিনি। এ সময় বলছেন, ভোটে জয় পেলে ওই গরুসহ একটি ছাগল জবাই করে খাওয়ানো হবে।

এ বিষয়ে আবদুল জলিল নামে আরেক মেম্বার প্রার্থী অভিযোগ করে বলেন, গ্রামের ভোটারদের এভাবে লোভ দেখিয়ে ভোট টানার চেষ্টা করছে। এটা আচরণবিধি লঙ্ঘন। আমি নির্বাচন কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ করব।

এ ব্যাপারে মেম্বার প্রার্থী হায়দার আলী বলেন, আমার গ্রামের লোকদের খুব ভালোবাসি। গতবার এলাকার লোক আমাকে বিপুল ভোটের ব্যবধানে জয়লাভ করিয়েছে। এবারও আমাকে তারা ভোট দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। তাই আমি এই গরু ও একটি ছাগল জবাই দেওয়ার কথা জানিয়েছি। শুধু গ্রামে নয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকেও পোস্ট দিয়েছি।

জানতে চাওয়া হয়- আচরণবিধি লঙ্ঘন হচ্ছে কি না, এ বিষয়ে হায়দার আলী বলেন, আমার একটা ভুল হয়ে গেছে। আপনারা লেখালেখি করিয়েন না। আর মাত্র দুদিন পরই নির্বাচন। জানেন তো নির্বাচন করতে একটু খরচ বেশি।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা উজ্জল কুমার রায় বলেন, এমন ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পাইনি। পেলে তদন্ত করে ওই প্রার্থীর বিরুদ্ধের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুন