সোমবার, ০৪ Jul ২০২২, ০৩:১৮ পূর্বাহ্ন

আল্লাহ্‌ চাইলে যে কোন মানুষকে সম্মান দান করতে পারে। নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য একেএম শামীম ওসমান বলেছেন, মানুষের ভোটে নির্বাচিত হয়ে মানুষকে না চেনা ঠিক না। অনেকে নির্বাচনের আগে গরিবের পা ধরে, বুকে নিয়ে ভোট চায়। নির্বাচনের পর তাদের চেনে না। আপনি সবার আশা পূরণ করতে পারবেন না। তবে মানুষ যখন সমস্যা নিয়ে আসে, তখন পিঠে হাত দিয়ে সাহস দেওয়া সম্ভব। পাশে থাকার আশ্বাসটুকুই মানুষ চায়। এটাই আমার মূল চাওয়া।

বৃহস্পতিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোড সংলগ্ন নাসিম ওসমান মেমোরিয়াল (নম) পার্কে নবনির্বাচিত ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ ও পরিচিতি সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

শামীম ওসমান বলেন, আজকে দুইটা উদ্দেশ্যে এখানে আসা। একটা সবার সঙ্গে পরিচিত হওয়া। আরেকটা হলো সম্মান দেওয়ার মালিক আল্লাহ। আমি আজকে আপনাদের পরিচয় করিয়ে দিচ্ছি এটা আমার দেওয়া না, জনগণ ভোট দিয়েছে, আপনারা নির্বাচিত হয়েছেন। এটা আল্লাহ দিয়েছেন।

তিনি বলেন, আমি যখন প্রথম নির্বাচন করেছিলাম, তখন একজন কামেল লোকের সঙ্গে দেখা হয়েছিল। তিনি বলেছিলেন, কাউকে ওয়াদা করবা না যে, এটা আমি করে দিব। বলবা আল্লাহর হুকুম হলে আমি এটা করব। আল্লাহর নবীর জন্যেও ইনশাআল্লাহ প্রযোজ্য ছিল। এখানে সকলে আওয়ামী লীগ করেন না। এখানে অনেকে অন্য দলের আছেন। আমার কাছে এটা বিষয় না। আপনারা সকলে জনগণের প্রতিনিধি। এই সম্মান আল্লাহ আপনাদের দিয়েছেন।

শামীম ওসমান বলেন, আপনারা নির্বাচনের আগে অনেক কথা বলেছেন। একজন মেম্বারের কিছু করার ক্ষমতা নেই, যদি চেয়ারম্যান সাপোর্ট না দেয়। আবার চেয়ারম্যানরা এমপি ছাড়া কিছু করতে পারবেন না। প্রশাসন অন্য কথা। আপনারা যদি ব্যক্তিস্বার্থ হাসিলের জন্য এখানে এসে থাকেন তাহলে আসসালামু আলাইকুম।

আমি আপনার পথে বাধা হয়ে দাঁড়াব। আপনারা বিরুদ্ধে থাকলেও আমার আপত্তি নেই। আমার রাজনীতি আমার জন্য ইবাদত। মানুষের জন্য কাজ করার চেয়ে বড় ইবাদত কিছু নেই।

আরও পড়ুন