সোমবার, ০৪ Jul ২০২২, ০৩:১১ পূর্বাহ্ন

ঢাকাই সিনেমার আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমণি। নিজের চলচ্চিত্র ক্যারিয়ার থেকে ব্যক্তিজীবনকে ঘিরেই বেশি আলোচনায় থাকেন তিনি। সম্প্রতি শরিফুল রাজ নামের এক অভিনেতাকে বিয়ে করেছেন এই নায়িকা। বিয়ের পরই সুখবর জানিয়েছেন এই দম্পতি। শীঘ্রই সন্তানের মা হতে চলেছেন পরী।

এদিকে ভালোবাসা দিবস উপলক্ষ্যে দেশের একটি জাতীয় দৈনিকের সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠানে হাজির হন এই দম্পতি। সেখানে নিজেদের প্রেম ও বিয়ে সম্পর্কিত নানা তথ্যও শেয়ার করেন। সাক্ষাৎকারের একপর্যায়ে পরী জানান রাজকে প্রেমের প্রস্তাব তিনিই আগে দিয়েছিলেন। অভিনেত্রী বলেন, ‘বন্ধ লিফটে ফুল হাতে হাঁটু মুড়ে বসে আমিই রাজকে প্রথম প্রেমের কথা বলেছি!’

সাক্ষাৎকারে সম্পর্ক নিয়ে আরও অকপট ছিলেন পরীমণি। জানিয়েছেন, তাঁদের প্রথম দেখা ‘গুনিন’ ছবির চিত্রনাট্য পড়ার সময়ে। সাদা পাঞ্জাবি-পাজামায় সেদিন নায়ক রাজ যেন সত্যিই রাজপুত্র। পরী প্রথম দিনেই চোখ ফেরাতে পারেননি। তাঁদের প্রেমের অনুঘটক ছবির পরিচালক গিয়াসুদ্দিন সেলিম। রাজের সঙ্গে এরপর যত কথা বলেছেন, ততই মুগ্ধ তাঁর পর্দার নায়িকা। রাজের ছেলেমানুষী, খুনসুটিতে পাগল তিনি। তখনই ঠিক করে নিয়েছিলেন, বিয়ে করলে এঁকেই করবেন।

সেই সময় রাজের ডান হাত ভেঙে গিয়েছিল। বাঁ হাতে কোনও রকমে খেতেন। এক দিন দেখার পরেই পরী এরপর নিজের হাতে তাঁকে খাইয়ে দিতে শুরু করেন। প্রতিদিন তিন বেলা এভাবেই নিজে রেঁধে, বেড়ে খাওয়াতেন নায়ককে। রাজের কথায়, ‘প্রথম দিন থেকেই ও আমার বউ। প্রচণ্ড যত্ন করত আমার।’ তারপরেও পরীর আফসোস, রাজ তাঁকে কোনও দিন ফিরিয়ে ভালবাসার কথা বলেননি! সেই আক্ষেপও মিটল ভালোবাসা দিবসে। রাজ সেদিনের সন্ধ্যায়ও সাদা পাঞ্জাবি-পাজামায় ছিলেন। পরী পরেছিলেন লাল বেনারসি। তাঁরা পৌঁছে যান স্থানীয় এক নদীর পাড়ে। সেখানেই প্রকৃতিকে সাক্ষী রেখে প্রকাশ্যে ভালবাসার কথা প্রথম জানান অভিনেতা। পুরো ঘটনা ভিডিও করে ছড়িয়ে দিয়েছেন নায়িকা। ভালবাসায় ভাসতে ভাসতে নদীর পাড় ধরে ছুটছেন রাজ। আকাশ-বাতাসে প্রতিধ্বনিত তাঁর একটিই কথা, ‘পরী আমি তোমাকে চাই…ভালোবাসি।’

আরও পড়ুন