রবিবার, ০৩ Jul ২০২২, ০২:৩১ অপরাহ্ন

বিশ্বের সবচেয়ে বড় ক্রীড়াযজ্ঞ অলিম্পিক, প্রতিটি অ্যাথলেটেরই স্বপ্নের জায়গা। কিন্তু এই স্বপ্নের মঞ্চ ছেড়ে দিতে বিন্দুমাত্র পরোয়া করলেন না আলজেরিয়ান জুডোকা ফেথি নওরিন।

ইসরায়েলি প্রতিপক্ষের বিপক্ষে খেলতে হবে বলে চলতি টোকিও অলিম্পিক থেকে নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন এই অ্যাথলেট এবং তার কোচ

আন্তর্জাতিক জুডো ফেডারেশন শনিবার এই খবরটি নিশ্চিত করেছে। সেইসঙ্গে জানিয়েছে, সাময়িকভাবে এই দুজনকে নিষেধাজ্ঞা দেয়ার কথা। এখানেই শেষ নয়, তদন্ত কমিশন পুরো ঘটনা তদারকি করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেবে। অর্থাৎ শাস্তি আরও বাড়তে পারে তাদের।

কিন্তু এসব কিছুতে মোটেই পরোয়া করছেন না ৩০ বছর বয়সী নওরিন। আলজেরিয়ান এই টেলিভিশনে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘আমরা অলিম্পিকে আসতে অনেক কষ্ট করেছি। কিন্তু ফিলিস্তিনের ব্যাপারটা সব কিছুর ওপরে।’

শিষ্যের এমন সিদ্ধান্তে সমর্থন জানিয়েছেন তার কোচ বেনিখালেফও। তিনি বলেন, ‘ড্রটা আমাদের জন্য দুর্ভাগ্যজনক ছিল। আমরা ইসরায়েলি প্রতিপক্ষ পেলাম এবং এজন্যই আমাদের সরে যেতে হলো। আমরা সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

এবারই প্রথম নয়
নওরিনের টোকিও অলিম্পিকে ৭৩ কেজি ওজন শ্রেণিতে অংশ নেয়ার কথা ছিল। এবারই তার সরে যাওয়ার ঘটনা প্রথম নয়।

দুই বছর আগে টোকিওতেই ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে এই জুডোকা সরে দাঁড়িয়েছিলেন ইসরায়েলি প্রতিপক্ষকে এড়িয়ে যেতে।

ফিলিস্তিনে ইসরায়েলি বাহিনীর দখলদারিত্বের প্রতিবাদ জানিয়ে মিশর এবং ইরানের অ্যাথলেটদেরও সরে যাওয়ার নজির আছে।

আরও পড়ুন