শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২, ০৩:৫৩ পূর্বাহ্ন

কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার পুটিয়াপাড়া এলাকার বাসিন্দা আতিকুর রহমান আতিক। তিনি মাত্র ১২ শতাংশ জমিতে মাল্টা চাষ করে লাখপতি হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন। আতিকুর রহমান বাসসকে বলেন, ২০১৯ সালের নভেম্বরে ৫০০ টি মাল্টার গাছ লাগান তিনি। বারী-১ জাতের এই মাল্টার চারা সরবরাহ করে কৃষি বিভাগ। নিয়মিত পরিচর্যায় গাছগুলো বেড়ে উঠেছে। গাছে গাছে মাল্টা ধরেছে। কষ্টের ফল তিনি এখন পাচ্ছেন। কেউ বাগান দেখতে গেলে তিনি উচ্ছ্বাস নিয়ে মাল্টা চাষের গল্প শোনান।

তিনি বলেন, ‘শ্রম ও বিশ্বাস এ দুটো মিলিয়েই সাফল্য এসেছে। চলতি মৌসুমে এক হাজার কেজি মাল্টা উৎপাদন হবে বলে আশা করছি। এ হিসেবে মাল্টা বিক্রি থেকে কমপক্ষে ১ লাখ টাকা আয় হবে। আতিকুর রহমান জানান, স্থানীয়ভাবে উৎপাদন করা যেকোনো ফলের প্রতি ক্রেতাদের আগ্রহ থাকে এবং দামও ভালো পাওয়া যায়। এ কারণে তিনি প্রবাস থেকে ফিরে এসে মাল্টা চাষের প্রতি তার আগ্রহ বেড়েছে। আরেকটি মাল্টা বাগানও করতে চান তিনি।

এ বিষয়ে উপজেলার উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা কামরুজ্জামন বলেন, আতিকুর রহমানের সফলতা দেখে আশপাশের অনেকেই মাল্টা চাষ শুরু করার কথা ভাবছে।

কুমিল্লা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক মিজানুর রহমান বলেন, মাল্টা সুস্বাদু ফল। জেলায় এ পুষ্টিকর ফলটির চাষ করা হচ্ছে। এটা অবশ্যই একটি ভালো সংবাদ।

আরও পড়ুন